আজ ৮ই আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২২শে জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

প্রতিবন্ধী মেরিনাকে নতুন ঘরসহ ঈদ উপহার দিলেন নিউ লাইফ ফাউন্ডেশন

খবরটি নিচের যেকোন মাধ্যমে শেয়ার করুন



আরিফ উদ্দিন, গাইবান্ধা প্রতিনিধিঃ
গাইবান্ধার পলাশবাড়ীর প্রত্যন্ত পল্লীতে বাঁশের টঙের নিচে অমানবিক মানবেতর বসত হতদরিদ্র অসহায় প্রতিবন্ধী মেরিনাকে নতুন ঘরসহ ঈদ উপহার দিলেন নিউ লাইফ ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান আমেরিকা প্রবাসী প্রকৌশলী আবু জাহিদ নিউ।
পৌরশহরের আন্দুয়া গ্রামে দীর্ঘ বছর ধরে বাঁশের টঙের নিচে বসত এতিম প্রতিবন্ধী মেরিনা খাতুনকে শুক্রবার (১৪ মে) ঈদের দিন বিকেলে নতুন ঘর ছাড়াও ঈদের নতুন জামাকাপড়সহ উন্নত খাবার উপহার দেয়া হয়।
ওই গ্রামের মৃত সাইদুল ইসলামের মেয়ে জন্ম প্রতিবন্ধী মেরিনা খাতুন (২৮) জীবদ্দশায় মা-বাবাসহ দেখ-ভাল করার মত পারিবারিক তেমন কোন সজ্জন না থাকায়
গত শীত মৌসুমে শীতের তীব্রতার কবল থেকে রক্ষা পেতে সে বাঁশের টঙের নিচে জীবন যাপন শুরু করে।
মেরিনা হাঁটাচলা করতে সম্পূর্ণ অপারগ। স্পষ্টভাবে কথাও বলতে পারেনা। অমানবিক ভাবে শরীরকে কাজে লাগিয়ে কোন রকমে মাটিতে হামাগুড়ি দিয়ে গড়িয়ে গড়িয়ে কোনরকমে সামনে এগুতে পারে। চিকন সরু প্রকৃতির হাত-পা। বসে থাকতেও অসহনীয় নিদারুন কষ্ট। পড়নের কাপড়েই প্রকৃতির ডাকে তাকে সাড়া দিতে হয়। তার অবর্ণনীয় দুঃখকষ্টে ব্যথিত এলাকার উৎসুক মানবিক মানুষ তাকে এক নজর দেখতে গেলে মেরিনা শুধু ফ্যাল-ফ্যাল করে তাঁকিয়ে থাকে। অপরের সাহায্য ছাড়া তাঁর জীবন যাত্রায় চলাফেরা যেন দুঃসহ। দেখ-ভাল করে থাকেন তার খালা ছালেহা বেগম।
মেরিনার মানবিক প্রতিবেদনটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকসহ বিভিন্ন পত্র-পত্রিকায় প্রকাশিত হয়। নিউ লাইফ ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান আমেরিকা প্রবাসী মানবতার ফেরিওয়ালা প্রকৌশলী আবু জাহিদ নিউ-এর নজরে আসে বিষয়টি। পরবর্তীতে তিনি ফাউন্ডেশনের পক্ষে সরেজমিন খোঁজ-খবর নিয়ে জানতে পারেন মেরিনার আর্তনাদ ও অসহাত্বের কথা। তাৎক্ষণিক একটি নতুন ঘর দেয়ার প্রতিশ্রুতি দেন। প্রতিশ্রুতি পূরণে অনুযায়ী ১৪ মে আবু জাহিদ নিউ তার জন্মদিন এবং সেইসাথে ঈদুল ফিতর-এর বিশেষ দিনে মেরিনাকে উপহার হিসেবে ফাউন্ডেশনের জনবল করগেট টিনের একটি নতুন ঘরসহ নতুন জামা কাপড় হস্তান্তর করেন। ফাউন্ডেশনের সাধারণ সম্পাদক রশিদুল ইসলাম ও কোষাধ্যক্ষ হাবিবুর রহমানসহ সংশ্লিষ্ট অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন।
এসময় মেরিনার খালা ছালেহা বেগমের নিকট এসব হস্তান্তর করা হয়। এমন সহায়তা পেয়ে খুশির কান্নায় আবেগাপ্লুত ছালেহা বেগম আবু জাহিদ নিউ-এর প্রতি আন্তরিক কৃতজ্ঞতাসহ আন্তদোরিক দো’আ করেন।

উল্লেখ্য; অবহেলিত গাইবান্ধার পলাশবাড়ী-সাদুল্লাপুর এবং রংপুর জেলার পীরগঞ্জ উপজেলা এলাকার গ্রামাঞ্চলের চিহৃিত হতদরিদ্র-অসহায় মানুষের অবর্ণনীয় দুঃখ-দুর্দশার কথা চিন্তা করেই এসব নিরন্ন জনগোষ্ঠীর অন্ন-বস্ত্র-বাসস্থান-চিকিৎসা-শিক্ষা- বিনোদনসহ কর্মসংস্থানের সুযোগ নিশ্চিতকরণে দীর্ঘদিন ধরে বিভিন্ন ক্ষেত্রে মানবিক সহায়তার কাজ করে আসছেন। প্রকৌশলী আবু জাহিদ নিউ তার জীবদ্দশায় আগামীর দিনগুলোতে ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে মানবিক সহায়তার কার্যক্রম অব্যাহত চালিয়ে যাবেন বলে তিনি জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই বিভাগের আর নিউজ দেখুন