সোমবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৩:৫৬ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :

আজ পবিত্র হজ

অনলাইন ডেস্ক:
  • প্রকাশের সময়: বৃহস্পতিবার, ৩০ জুলাই, ২০২০
  • ১২৪ জন দেখেছেন

আজ ৯ জিলহজ (সৌদি আরবে) বৃহস্পতিবার পবিত্র হজ। লাব্বাইকা আল্লাহুম্মা লাব্বাইক, লাব্বাইকা লা শারিকা লাকা লাব্বাইক। ইন্নাল হামদা ওয়াননিমাতা লাকা ওয়াল মূলক। লা শারিকা লাক।


আমি হাজির, হে আল্লাহ, আমি হাজির। তোমার কোনো শরিক নাই। সব প্রশংসা ও নিয়ামত শুধু তোমারই, সব সাম্রাজ্যও তোমার। আজ মক্কার অদূরে আরাফাতের ময়দানে সমবেত হয়ে হাজীরা মহান রাব্বুল আলামিনের উদ্দেশে পাঠ করবেন এই তালবিয়া। লাব্বাইক আল্লাহুম্মা লাব্বাইক ধ্বনিতে মুখরিত হবে আরাফাতের ময়দান। হজ মুসলিম বিশ্বের বৃহত্তম সম্মেলন। এ বছর বিশ্বব্যাপী মহামারী কভিড-১৯-এর কারণে স্বাস্থ্যবিধি ও সামাজিক দূরত্ব মেনে সীমিত পরিসরে পালিত হচ্ছে পবিত্র হজ।

নারী পুরুষ নির্বিশেষে হাজীরা মঙ্গলবার রাত থেকে মিনায় অবস্থান নেওয়ার মধ্য দিয়ে শুরু হয় পবিত্র হজ পালনের আনুষ্ঠানিকতা। তারা গতকাল সারা দিন মিনায় কাটান ইবাদত-বন্দেগির মধ্য দিয়ে। মিনায় পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ আদায় করেন। মিনার তাঁবুতে রাত যাপন করে আজ ভোরে রওনা দেন আরাফাতের ময়দানের উদ্দেশে। আল্লাহর প্রিয় হাবিব হজরত মুহাম্মদ (সা.) উম্মতরা আরাফাতের ময়দানে সূর্যোদয় থেকে সূর্যাস্ত পর্যন্ত অবস্থান করে মহান আল্লাহর সন্তুষ্টি লাভের আশায় জিকির আসকারে মশগুল থাকবেন। পুরুষ হাজীরা পরিধান করবেন সেলাইবিহীন দুই টুকরা সাদা কাপড়ের ইহরাম।

বিশ্বব্যাপী মহামারী কভিড-১৯-এর কারণে বিশ্বের নানা প্রান্ত থেকে আসা হজ যাত্রীদের পরিবর্তে এবারই প্রথম সৌদি আরবে অবস্থানকারী বিভিন্ন দেশের মুসলিম নাগরিকরা হজে অংশ নিচ্ছেন। প্রচলিত রীতি অনুয়ায়ী আজই মক্কা নগরীর মসজিদুল হারামে পবিত্র কাবার গিলাফ পরিবর্তন করা হবে। এদিকে আরাফাতের মসজিদুল নামিরায় হজের খুতবা পাঠ করবেন মক্কা আল মোকাররমা কোর্টের প্রেসিডেন্ট ড. আবদুল্লাহ বিন সুলাইমান আল-মানিয়া। সেখানে আল্লাহর মেহমান হাজীরা একসঙ্গে জোহর এবং আসরের নামাজ আদায় করবেন

আল্লাহর কাছে গুনাহ মাফের জন্য দোয়া করবেন। সারা দিন দরুদ পাঠ, জিকির আসকারে সময় কাটাবেন। সূর্যাস্তের পর মুযদালিফার উদ্দেশ্যে রওনা হবেন। মুযদালিফায় পৌঁছে একসঙ্গে মাগরিব এবং এশার নামাজ আদায় করবেন। সেখানে রাত যাপন করবেন। আগামীকাল শুক্রবার শয়তানের উদ্দেশ্যে প্রতীকী পাথর নিক্ষেপের জন্য কংকর সংগ্রহ করবেন। করোনার কারণে এবার সৌদি কর্তৃপক্ষ জীবাণুমুক্ত প্যাকেটজাত কংকর সরবরাহ করবে বলে হাজীদের নিজ উদ্যোগে তা আর সংগ্রহ করতে হবে না। সৌদি কর্তৃপক্ষ ঘোষণা দিয়েছেন, এবার হজ পালনকারীরা কাবা শরিফ ও কালো পাথর (হুজরে আসওয়াদ) চুমু খেতে বা স্পর্শ করতে পারবেন না। আরাফাতের ময়দান ছাড়া সব সময় মাস্ক পরিধান করতে হবে। হাজীরা আগামীকাল ১০ জিলহজ (সৌদি আরবে) থেকে পরপর তিন দিন জামারায় শয়তানের উদ্দেশ্যে কংকর মারবেন। আগামী কাল প্রথম দফা কংকর নিক্ষেপের পর পুরুষ হাজীরা মাথা মু-ন করবেন। সবাই কোরবানি দিবেন। মক্কায় ফিরে কাবা শরিফ তাওয়াফ এবং সাফা ও মারওয়া সাঈ করবেন। এরপর আবার মিনায় ফিরে যাবেন। সেখানে দুই দিন অবস্থান করবেন।

সামাজিক যোগাযোগে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আর নিউজ দেখুন
© All rights reserved 2015- 2020 thepeoplesnews24

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের তথ্যমন্ত্রনালয়ের নিয়ম মেনে নিবন্ধনের আবেদন কৃত।

Design & Developed By: Limon Kabir
freelancerzone